প্রতারক বুলবুলের বিরুদ্ধে সিআইডির চার্জশীট দাখিল- জনকল্যাণ২৪

প্রকাশিত: ৩:৫৩ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ২২, ২০২০

প্রতারক বুলবুলের বিরুদ্ধে সিআইডির চার্জশীট দাখিল- জনকল্যাণ২৪

বিশেষ প্রতিনিধি:: সিলেটের কানাইঘাটে ময়নুল হক বুলবুল নামের এক প্রতারক ভিজিট ভিসায় ফ্রান্স পাঠানোর কথা বলে ৮ লাখ টাকা আত্মসাৎ ও প্রতারণা করার মামলায় তার বিরুদ্ধে চার্জশিট দাখিল করা হয়েছে। মামলায় অভিযুক্ত ও প্রতারণাকারী বুলবুল সিলেটের কানাইঘাটের বায়মপুর গ্রামের মৃত শফিকুল হকের ছেলে। আর মামলার বাদী একই থানার লক্ষ্মীপ্রসাদ পুর্ব ইউনিয়নের কাড়াবাল্লাহ গ্রামের মৃত খলিলুর রহমানের ছেলে রায়হান উদ্দিন ।

মামলা তদন্ত করে গত ০৫/৯/২০২০ ইংরেজি তারিখে সিলেটের সিনিয়র জ্যুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে এ চার্জশীট দাখিল করা হয়েছে বলে জানাগেছে। মামলার তদন্তকারী অফিসার ‘সিআইডি’ সিলেট জোন রোকেয়া খানম এ চার্জশিট দাখিল করেন।

এজাহার সূত্রে জানাগেছে, বাদী রায়হান উদ্দিন সিলেট পলি টেকনিক কলেজ হইতে ডিপ্লোমা কোর্স শেষ করে ২০১৫ ইংরেজি সনে “সাইপ্রাস গ্লোবাল কলেজে” গিয়ে ভর্তি হন। সেখানে যাওয়ার পর আসামি বুলবুলের ছেলে আব্দুল্লাহর সাথে রায়হান উদ্দিনের পরিচয় হয়। সেই সুযোগে আসামির ছেলে আব্দুল্লাহ রায়হানকে জানায় তার পিতা বুলবুল সাইপ্রাস হতে প্রায় অর্ধশতাধিক লোককে ফ্রান্স পাঠিয়েছে। এমন সময় বাদী রায়হান উদ্দিন ফ্রান্স যাওয়ার ইচ্ছে পোষণ করিলে আসামীর ছেলে আশ্বস্ত করে যে, তাকে বিমানযোগে ভিজিট ভিসায় ফ্রান্স পাঠাবে। এর জন্য বাদী রায়হানকে ১২ লক্ষ টাকা দিতে হইবে। উল্লেখিত টাকার মধ্যে ফ্রান্স যাওয়ার আগে ৮ লক্ষ্য টাকা এবং যাওয়ার পর ৪ লক্ষ টাকা দিতে হইবে। বাদী সহজ সরল লোক হওয়াতে তাহাদের কথায় রাজি হয়ে বাংলাদেশে থাকা আব্দুল্লাহর পিতা প্রতারক বুলবুলের সাথে কথাবার্তা বলে একপর্যায়ে বিভিন্ন মাধ্যমে সাক্ষীগণ রেখে ৮ লক্ষ টাকা দিয়ে দেন বুলবুলকে।

টাকা লেনদেনের পর আসামীর ছেলে আব্দুল্লাহ নৌযানে করে বাদীকে ফ্রান্সে নিয়ে যাওয়ার কথা বলিলে বাদী ইহাতে রাজী না হওয়ায় আসামির ছেলে আব্দুল্লাহ বাদীকে বিভিন্ন হুমকিধামকি দেন, একপর্যায়ে মেরে ফেলার ও হুমকি দেন। পরে আসামীর সাথে বাদীর এ বিষয় কথা হইলে আসামি জানান এখন আর বিমানযোগে যাওয়া যাবেনা। তাই নৌপথে না গেলে বাংলাদেশ আসার পর তার কাছ থেকে টাকা নিয়ে যেতে বলেন। বাদী বিগত ২০১৭ সালের এপ্রিল মাসে দেশে আসার পর আসামির কাছে টাকা চাইলে আসামি বিভিন্ন তারিখ করতে থাকেন, এমনকি শেষ পর্যন্ত একদিন টাকা চাইতে গেলে আসামি বুলবুল বাদীকে সাফ জানিয়ে দিলেন যে, তিনি কোনভাবেই টাকা দিতে পারবেননা, টাকা চাইলে প্রাণে মারা হইবে।

অবশেষে নিরুপায় হয়ে বাদী রায়হান উদ্দিন প্রতারক বুলবুলকে একমাত্র আসামি করে সিলেটের সিনিয়র জ্যুডিসিয়েল ম্যাজিস্ট্রেট ৫নং আমলী আদালতে ৮ লাখ টাকা আত্মসাৎ ও প্রতারণার অভিযোগ এনে মামলা দায়ের করেন রায়হান আহমদ। মামলা নং ৩১. সিআর নং ২৮০/১৯ ধারা নং ৪০৬/ ৪২০

মামলা তদন্ত করে অভিযোগকারীর সম্পুর্ন অভিযোগ প্রমান হওয়াতে চার্জশিট দাখিল করেন পুলিশ পরিদর্শক সিআইডি রোকেয়া খানম।
মামলা তদন্তকারী সিআইডি রোকেয়া খানম বলেন, দীর্ঘ তদন্তের পর ঘটনার সত্যতা পাওয়ায় তিনি আদালতে চার্জশীট দাখিল করেছেন।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ